বুথে গুলি চলা নিয়ে তদন্ত রিপোর্ট কমিশনের হাতে!

দুবেলা, শুভশ্রী সরকার: রাজ্যে আটটি লোকসভা কেন্দ্রে চতুর্থ দফার ভোটের  ওয়ার উন্মাদনা।বেলা বাড়তেই দেখা গেল উত্তপ্ত দক্ষিণবঙ্গের ‘বীরভূম’ জেলা। দুবরাজপুর-এ কানদীঘির 284/259 নং বুথে বিজেপি- তৃণমূল সংঘর্ষ চলছিল। কিন্তু এবার কেন্দ্রীয় বাহিনীর বিরুদ্ধে বুথের ভেতরই গুলি চালানোর অভিযোগ উঠল। সেই গুলির চিহ্ন ভোট কেন্দ্রের দেওয়ালে দেখা গিয়েছে।

জানা গিয়েছে, বুথে ভোটারদের মোবাইল ফোন নিয়ে প্রবেশ নিষিদ্ধ। সেকারণে মোবাইল জমা রাখতে বলা হয়। কথা মত ভোটাররা মোবাইলফোন এক সেনার কাছে জমাও রাখে।কিন্তু কোনো কারণে কিছু ফোন নিচে পড়ে যায়। আর তা নিয়েই বাধে বিরোধ, শুরু হয় কথাকাটাকাটি। সাধারণ ভোটারও বুথ লক্ষ্য করে ইট ছোড়েন। তারপরই কেন্দ্রীয় বাহিনী বুথের মধ্যেই গুলি চালায় বলে অভিযোগ।
গুলির আওয়াজে আতঙ্কিত ভোটাররা পালাতে গেলে কয়েকজন আহতও হয়েছে বলে খবর। যদিও কেন্দ্রীয়বাহিনীর পাল্টা দাবি, তাদের ওপর আক্রমণ করেন ভোটাররা আর তা থেকে আত্মরক্ষার স্বার্থেই শূন্যে গুলি ছোড়া হয়।

দুবেলা, শুভশ্রী সরকার: রাজ্যে আটটি লোকসভা কেন্দ্রে চতুর্থ দফার ভোটের দিন সকাল থেকেই ছিল ভোট দেওয়ার উন্মাদনা। বেলা বাড়তেই দেখা যায় উত্তপ্ত হয়ে ওঠে দক্ষিণবঙ্গের ‘বীরভূম’ জেলা।

দুবরাজপুর-এ কানদীঘির 284/259 নং বুথে বিজেপি- তৃণমূল সংঘর্ষ চলে। কিন্তু তখন কেন্দ্রীয় বাহিনীর বিরুদ্ধে বুথের ভেতরই গুলি চালানোর অভিযোগ তোলে রাজ্য পুলিশ। সেই গুলির চিহ্ন ভোট কেন্দ্রের দেওয়ালে দেখা গিয়েছে।

জানা গিয়েছে, বুথে ভোটারদের মোবাইল ফোন নিয়ে প্রবেশ নিষিদ্ধ। সেকারণে মোবাইল জমা রাখতে বলা হয়। কথা মত ভোটাররা মোবাইলফোন এক সেনার কাছে জমাও রাখে।কিন্তু কোনো কারণে কিছু ফোন নিচে পড়ে যায়। আর তা নিয়েই বাধে বিরোধ, শুরু হয় কথাকাটাকাটি। সাধারণ ভোটারও বুথ লক্ষ্য করে ইট ছোড়েন। তারপরই কেন্দ্রীয় বাহিনী বুথের মধ্যেই গুলি চালায় বলে অভিযোগ।
গুলির আওয়াজে আতঙ্কিত ভোটাররা পালাতে গেলে কয়েকজন আহতও হয়েছে বলে খবর। যদিও কেন্দ্রীয়বাহিনীর পাল্টা দাবি, তাদের ওপর আক্রমণ করেন ভোটাররা আর তা থেকে আত্মরক্ষার স্বার্থেই শূন্যে গুলি ছোড়া হয়।

সেই নিয়ে রাজ্যের শাসকদল তৃণমূল কংগ্রেসের পক্ষ থেকে নির্বাচন কমিশন এর কাছে অভিযোগ জানায়। সেই নিয়ে রিপোর্ট তলব করে কমিশন।  সেই রিপোর্ট  নির্বাচন কমিশন এর   হাতে    এসেছে। এখন দেখার এই নিয়ে কি ব্যবস্থা নেয় কমিশন ।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Related posts

Leave a Comment