শেষ দফার নির্বাচন আজ দেশের ৫৯টি আসনে !

দুবেলা, দেবনীল সাহাঃ রাত পোহালেই লোকসভা নির্বাচনের শেষ দফার ভোট দেশ জুড়ে। দেশের মোট ৫৯টি আসনে ভোটের মাধ্যমে ভাগ্য নির্ধারণ হবে ৯১৮জন প্রার্থীর। যার মধ্যে সামিল স্বয়ং নরেন্দ্র দামোদরদাস মোদীও। বারাণসী থেকে গতবারের মতো এবারও প্রার্থী হয়েছেন তিনি। এবারে অবশ্য তাকে জোর টক্কর দিতে ময়দানে রয়েছেন কংগ্রেসের অজয় রাই, সপা-বসপা জোটের শালিনি যাদব সহ আরো ২৫জন প্রার্থী।

সপ্তম দফার নির্বাচনে পঞ্জাব ও উত্তরপ্রদেশের ১৩টি, বিহার ও মধ্যপ্রদেশের ৮টি, হিমাচলপ্রদেশের ৪টি, ঝাড়খন্ডের ৩টি, ও চন্ডীগড় আসনে ভোটগ্রহণ হবে। এছাড়াও রবিবার পশ্চিমবঙ্গের দমদম, বসিরহাট, বারাসত, কলকাতা উত্তর ও দক্ষিণ, জয়নগর, মথুরাপুর, ডায়মন্ড হারবার ও যাদবপুর এই ৯টি আসনে নির্বাচন হতে চলেছে।

তবে ওয়াকিবহাল মহলের দাবি, উত্তরপ্রদেশ ও পশ্চিমবঙ্গই হবে পরিবর্তনের মূল কান্ডারী। বিশেষ করে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের পশ্চিমবঙ্গ, যার দিকে আজ নজর থাকবে গোটা দেশের। পশ্চিমবঙ্গের ৯টি আসনে হেভিওয়েট প্রার্থী বলতে ডায়মন্ড হারবার থেকে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় এবং উত্তর কলকাতা থেকে বিজেপির জাতীয় সম্পাদক রাহুল সিনহা। এছাড়াও সিপিএমের ডুবন্ত নৌকা সামলাতে যাদবপুর থেকে রয়েছেন বিকাশ রঞ্জন ভট্টাচার্য। রাজনৈতিক মহলের মতে, বাংলায় কাস্তে-হাতুরির যদি কোনো আশা থাকে তবে সেটা যাদবপুরেই।

এদিকে পশ্চিমবঙ্গকে একরকম পাখির চোখ করেছে বিজেপি। উত্তরপ্রদেশে সপা-বসপা জোটের ঠেলায় বিজেপির টালমাটাল অবস্থা সামাল দিতে মোদী-শাহ জুটির শেষ ভরসা বাংলাই। তাই এরাজ্যে এসে মোট ১৭টি সভা করেছেন নরেন্দ্র মোদী। বঙ্গ বিজেপিকে শক্তিশালী করে বাংলায় জায়গা করে নিতে মরিয়া গেরুয়া শিবির।

রবিবার সপ্তম দফার ভোটে তাই দেশ জুড়ে হিংসার ছায়া দেখছেন রাজনৈতিক মহলের একাংশ। শেষ দফায় ১০.১কোটি ভোটারের জন্য রয়েছে ১.১২লক্ষ বুথ। রাজ্যের নিরাপত্তার দায়িত্বে রয়েছে ৭১০কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী। ৩৮দিন ধরে চলা এই নির্বাচনের ফলাফল ২৩ মে। ওইদিনই জানা যাবে কার দখলে থাকবে দিল্লি।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Related posts

Leave a Comment