প্রথম দিনেই ভেঙে পড়ল বাংলাদেশের ব্যাটিং অডার!

দুবেলা, নিশান মজুমদারঃঃ    ভারত বাংলাদেশ ইন্দোরের টেস্ট ম্যাচের প্রথম দিনেই ভাঙন ধরল বাংলাদেশের ব্যাটিং অডারের ।

তাদের প্রথমদিনের শুরুটা খুব একটা ভালো না হলেও শেষটা ভালোই হল বিরাট ব্রিগেডের।

মোমিনুলের কাছে টসে পরাজিত হয়ে ফিল্ডিং-এ নামতে হয় বিরাট বাহিনীকে। শুরু থেকেই ভারতীয় বোলাররা চাপে রাখে বাংলাদেশী ওপেনারদের। নতুন বলে সুয়িংও নাস্তানাবুদ করে রেখেছিল বাংলাদেশী ওপেনার জুটিকে।

পঞ্চম ওভারের শেষ বলে উমেশ যাদবের সুয়িং বলের কাছে পরাজিত হয় কায়েস। অফ স্টাম্পের বাইরের বলকে খোঁচা দিয়ে চতুর্থ শ্লিপে থাকা রাহানের হাতে ধরা পড়ে প্যাভিলিয়নে ফিরে যান কায়েস।

উমেশের সাথে যোগ্য সহযোগিতা করেন ইশান্ত শর্মা। তারও আগুন ঝরানো বোলিং এর কাছে নতি স্বীকার করে নেন আরেক ওপেনার শাদমান ইসলাম। মাত্র ৬ রানেই তার ইনিংস শেষ হয়ে যায়। অফ স্টাম্পের বাইরের বলকে ড্রাইভ করতে গিয়ে, সুয়িং-এ পরাজিত হয়ে ধরা পড়েন ঋদ্ধিমান সাহার হাতে। বলে হাতে জ্বলে ওঠে মহম্মদ শামিও। মাত্র ১৩ রানেই ফিরিয়ে দেন মিডিল অর্ডার ব্যাটসম্যান মিঠুনকে।

ব্যাট হাতে প্রথম সারির ব্যাটসম্যানরা রান করতে না পারলেও মিডিল অর্ডার ব্যাটসম্যানরা বেশ সহযোগীতা করেছে। ১৬.৩ ওভারের মাথায় ১ম শ্লিপে থাকা রাহানে মাত্র ৩ রানে ব্যাট করা বাংলাদেশী অধিনায়কের ক্যাচ মিস করেন। এই জীবন দানকেই হাতিয়ার করে রান করতে থাকে মোমিনুল ও মুস্ফিকুর রহিম।

উমেশ যাদবের বলে ২৩.১ ওভারে ৩ রানে ব্যাট করতে থাকা মুস্ফিকুর রহিমের ক্যাচ মিস করেন স্বয়ং ভারতীয় অধিনায়ক। আবারও একটি জীবনদান পায় রহিম ১৪ রানের মাথায়। অশ্বিনের বলে আবারও ক্যাচ মিস করেন রাহানে। এর মধ্যেই অশ্বিন, ৩৭ রানেই মোমিনুলকে প্যাভিলিয়নে ফেরায়।

এরপর অশ্বিনের স্পিনের শিকার হন মহমদ্দুল্লা। অফস্টাম্পের বাইরের বলকে সুইপ করতে গিয়ে বোল্ড হয়ে যান মহমদ্দুল্লা। এর পর ধস নামে বাংলাদেশী ব্যাটিং অর্ডারে। একে প্যাভিলিয়নে ফিরে যেতে হয় মুস্ফিকুর রহিম, মেহেদি হাসান, লিটন দাস, তাইজুল ইসলাম, এবাদাত হোসেন। ভারতীয় বোলাররা খুব অল্প রান খরচ করেই বাংলাদেশের প্রথম ইনিংসে ইতি টানেন। ক্যাচ মিস করলেও ফিল্ডিং-এর নিপুন প্রদর্শন করেন ভারতীয় টিম। থার্ডম্যানের বাউন্ডারি থেকে রবীন্দ্র জাদেজার দুরন্ত থ্রো প্যাভিলিয়নে ফেরাতে বাধ্য করে তাইজুল ইসলামকে। ইনিংস শেষে বাংলাদেশের রান দাঁড়ায় ১৫০ রানে।

এরপর ভারতীয় দুই ওপেনার মায়াঙ্ক আগরওয়াল ও রোহিত শর্মা মাঠে নামে দ্রুত রান সংগ্রহের পরিকল্পনা নিয়ে। পরিকল্পনা অনুসারে মায়াঙ্ক আগরওয়াল প্রথম বলেই চার মেরে স্বাগত জানান বাংলাদেশী পেশারকে। তবে রোহিত শর্মা পরিকল্পনা অনুযায়ী ব্যাটিং করলেও বেশীক্ষন স্থায়ী হয়নি তার ইনিংস। জায়েদের বলে লিটন দাসের হাতে ধরা দিয়ে প্যাভিলিয়নে ফেরত যায় রোহিত শর্মা। কিন্তু চেতেশ্বর পুজারা ও মায়াঙ্ক শর্মা পরিকল্পনা অনুসারে ঝরের গতিতে রান তুলতে থাকে। প্রথম দিনের শেষে ভারতের রান ৮৬।

সংক্ষিপ্ত স্কোরঃ- প্রথম ইনিংসে বাংলাদেশ- ১৫০, শাদমান ৬(২৪) ক সাহা ব ইশান্ত, কায়েস ৬(১৮) ক রাহানে ব উমেশ, মোমিনুল ৩৭(৮০) ব অশ্বিন, মিঠুন ১৩(৩৬) ব শামি, রহিম ৪৩(১০৫) ব শামি, মহমদ্দুল্লা ১০(৩০) ব অশ্বিন, লিটন দাস ২১(৩১) ক কোহলি ব ইশান্ত, মেহেদি হাসান ০(১) ব শামি, তাইজুল ১(৭) রান আউট, আবু জায়েদ ৭(১৪) ন.আ, এবাদাত হোসেন ২(৫) ব উমেশ। বোলিং- ইশান্ত ১২-৬-২০-২, উমেশ ১৪.৩-৩-৪৭-২, শামি ১৩-৫-২৭-৩, অশ্বিন ১৬-১-৪৩-২, জাদেজা ৩-০-১০-০।
প্রথম ইনিংসে ভারত- ৮৬-১, মায়াঙ্ক ৩৭(৮১) ন.আ, রোহিত ৬(১৪) ক লিটন দাস ব জায়েদ, পূজারা ৪৩(৬১) ন.আ।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Related posts

Leave a Comment