কসবা কান্ড: অবৈধ সম্পর্কের জন্য খুন, ধারণা পুলিশের।

দুবেলা: কসবায় মহিলা খুনের ঘটনায় দু’জনকে গ্রেপ্তার করল কসবা থানার পুলিশ। ধৃতদের মধ্যে শম্ভু কয়াল মৃত শীলা চৌধুরির বাড়িতে সাফাইকর্মী হিসেবে কাজ করত। সে এবছর উচ্চমাধ্যমিক পাশ করেছে। অপর ধৃতের নাম রাকেশ দাস।

পুলিশ সূত্রে খবর, জেরায় শম্ভু জানিয়েছে শীলা চৌধুরি তার কাছ থেকে ২৭ হাজার টাকা ধার নিয়েছিলেন। বারবার টাকা চাওয়ার পরেও তা ফেরত দেননি তিনি। সেই থেকেই বাদানুবাদ। আর তার জেরেই খুন। দেওয়ালে মাথা ঠুকে ও বালিশ চাপা দিয়ে শীলাদেবীকে খুন করে বছর আঠারোর শম্ভু। ঘটনার সময় ফ্ল্যাটে ছিল রাকেশও। সে-ও খুনে সাহায্য করে বলে পুলিশ সূত্রে জানা গেছে। রাকেশের মা আগে শীলা চৌধুরির বাড়িতে পরিচারিকার কাজ করতেন। কয়েকমাস আগে তিনি সেই কাজ ছেড়ে দেন।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Related posts

Leave a Comment