এনআইএ-র জালে খাগড়াগড়ের মাস্টারমাইন্ড হবিবুর!

দুবেলাঃ অবশেষে এনআইএ-র জালে খাগড়াগড় কাণ্ডের মাস্টারমাইন্ড হবিবুর রহমান শেখ। এরাজ্যের শিয়ালদা ও হাওড়া থেকে ৪ জেএমবি জঙ্গিকে এসটিএফ গ্রেফতার করার পর এবার বেঙ্গালুরু থেকে এই জামাত জঙ্গিকে গ্রেফতার করল জাতীয় তদন্তকারী সংস্থা।

২০১৪-র ২ অক্টোবর দুর্গাপুজোর সময় বর্ধমান জেলার খাগড়াগড়ের একটি বাড়িতে আইইডি বিস্ফোরণ ঘুম ছুটিয়ে দিয়েছিল রাজ্য প্রশাসন থেকে কেন্দ্রীয় গোয়েন্দাদের। বিস্ফোরণে মৃত্যু হয় শাকিল গাজি ও করিম শেখ নামে দুজনের। ওই বাড়ি থেকে উদ্ধার করা হয় প্রচুর বিস্ফোরক, বোমা তৈরির মশলা, সরঞ্জাম।

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের নির্দেশে ওই ঘটনার ৭ দিন পর তদন্তের ভার নেয় এনআইএ। তদন্তে উঠে আসে পশ্চিমবঙ্গের বিভিন্ন প্রান্তে ছড়িয়ে থাকা আন্তর্জাতিক মদতপুষ্ট জঙ্গি নেটওযার্কের তথ্য। জামাত-উল-মুজাহিদিন বাংলাদেশ বা জেএমবি উঠে আসে এনআইএ-র হিট লিস্টে। বর্ধমানের পাশাপাশি উঠে আসে নদিয়া, বীরভম ও মুর্শিদাবাদের নামও।

শুধু এরাজ্যেই নয়, অসম-ঝাড়খণ্ডেও শিকড় খুঁজে পান তদন্তকারীরা। খাগড়াগড় কাণ্ডের সঙ্গে জড়িত ২১ জনের নামে চার্জশিট পেশ করে এনআইএ। পশ্চিমবঙ্গ ও বাংলাদেশে জঙ্গি নাশকতা ঘটানোর চক্রান্তে জড়িত বেশ কয়েকজনকে গ্রেফতারও করা হয় অবশেষে বিস্ফোরণের মূল পাণ্ডা হবিবুর রহমান শেখকে গ্রেফতার করল জাতীয় তদন্তকারী সংস্থা এনআইএ। মঙ্গলবার তাকে কর্ণাটকের রাজধানী শহর বেঙ্গালুরু থেকে গ্রেফতার করা হয় ২০১৫ সালের মার্চ মাসেই তার বিরুদ্ধে চার্জশিট দাখিল করা হয়েছিল।

তাকে গ্রেফতার করার জন্য ১০ লক্ষ টাকা পুরষ্কারের ঘোষণাও করেছিল এনআইএ। তার গ্রেফতারিকে বিশেষ সাফল্য বলেই মনে করছেন এনআইএ কর্তারা। মঙ্গলবারই স্থানীয় আদালতে তোলা হলে পাঁচ দিনের বিশেষ ট্রানজিট রিম্যান্ডে তাকে কলকাতায় নিয়ে আসার অনুমতি পেয়েছে এনআইএ।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Related posts

Leave a Comment