গোলাপী জ্বরে আক্রান্ত কলকাতা!

দুবেলা, নিশান মজুমদারঃঃ  আগামী ২২ থেকে ২৬শে নভেম্বর ইডেনে হতে চলেছে ভারত-বাংলাদেশের ঐতিহাসিক দিন-রাত্রি গোলাপি টেস্ট। এই টেস্টের টিকিটের চাহিদা ছিল আকাশ ছোঁয়া।

প্রায় ৬৭ হাজার দর্শক গ্যালারীতে বসে এই ম্যাচের রসাস্বাদন করতে পারবে। ইতি মধ্যেই ৩০ হাজারেরও বেশি টিকিট বিক্রি হয়ে গিয়েছে। বিভিন্ন ক্লাব ও সংস্থার কোটার টিকিট বিলি করছে সিএবি। তবে তার মধ্যে থেকে নির্দিষ্ট টিকিট কাউন্টার থেকে টিকিট বিক্রিকরা হবে বলে শোনা যাচ্ছে।

টিকিটের চাহিদা বিপুল পরিমান হওয়ায় সিএবি এখনো স্পষ্ট ভাবে কিছু জানাতে রাজি নন। সিএবি সচীব অভিষেক ডালমিয়া বলেন, “টেস্ট ম্যাচ ঘিরে টিকিটের এমন চাহিদা আগে কখনো দেখা যায়নি। বোঝাই যাচ্ছে গোপালি বলে দিন-রাতের টেস্টে অনেকেই সাক্ষী থাকতে চাইছেন। কর্পোরেট হাউসগুলি হাজার হাজার টিকিট চাইছে। টিকিট এখনো স্টাম্পিং হয়ে আসেনি। টিকিট এলে তার পরে বোঝা যাবে আমরা কাউন্টার থেকে কত টিকিট বিক্রি করতে পারবো। সেটা সম্ভবত ১৪ই নভেম্বরের পর জানা যাবে।

এদিকে ভারত-বাংলাদেশ দিন-রাতের টেস্ট ম্যাচে শহর জুড়ে প্রচারের উদ্যোগ নিয়েছে সিএবি। সিএবি সচীব জানান এই নিয়ে কলকাতা পুরসভার সাথে বৈঠকও হয়ে গিয়েছে। তিনি আরও জানান টেস্টের আগে থেকেই গোলাপি আলোয় সেজে উঠবে তিলোত্তমা, সাজানো হবে বড় বড় হেরিটেজ বিল্ডিংগুলি। সেই তালিকায় রয়েছে শহিদ মিনারও। হোর্ডিং টাঙানো হবে বিভিন্ন স্থানে। প্রথম তিনদিন গ্যালারী থাকবে হাউসফুল। প্রয়োজনে আইপিএলের মত শহরের বিভিন্ন প্রান্তে তৈরী করা হবে ফ্যান পার্ক।

মহারাজের সৌরভে সুরভিত হতে চলেছে এই ঐতিহাসিক টেস্ট। সেখানে “প্রথম” দর্শকের আসনে নিমন্ত্রণ জানালেন দুই দেশের দুই প্রধানমন্ত্রীকে ৷ এছাড়াও উপস্থিত থাকবেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ইডেনে দুই দেশের জাতীয় সঙ্গীত গাইবেন দুই দেশের দুই কিংবদন্তি তারকা শ্রেয়া ঘোষাল ও বাংলাদেশের রুনা লায়লা। এছাড়াও উপস্থিত থাকবেন দাবার তিন বারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন বিশ্বনাথন আনন্দ, মহিলা বক্সিংয়ের বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন মেরি কম, ভারতীয় টেনিসের তিন দিকপাল সানিয়া মির্জা, লিয়েন্ডার পেজ ও মহেশ ভুপাতি ৷ থাকবেন ব্যাডমিন্টন এ তারকা প্লেয়ার ও কোচ গোপিচাঁদ ৷

আরো যত দিন যাচ্ছে শোনা যাচ্ছে আরো বেশি তারকারাজির ঝলকানি ৷ সবটা হয়তো চুড়ান্ত হবে টেস্ট শুরুর দুই একদিন আগে। এছাড়াও উপস্থিত থাকবেন শচীন টেন্ডুলকার । সম্প্রচার কর্তৃপক্ষ স্টার স্পোর্টস নাকি ভারতের জীবিত সকল টেস্ট কাপ্টেনদের নিমন্ত্রণ করছেন ইডেনে ৷ দুই দলের জাতীয় সংগীতের সময় ভারতীয় সকল ক্যাপ্টেন এক লাইনে দাঁড়াবেন ৷

এটা হবে ভারতীয় ক্রিকেট ইতিহাসের এক সোনালী চিত্র ৷ ধারাভাষ্য কক্ষেও ধারাভাষ্য দেবেন ভারতীয় প্রাক্তন টেস্ট ক্যাপ্টেনরা। এমনকি বাদ যাবে না মহেন্দ্র সিং ধোনিও। এছাড়াও বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যকার ২০০০ সালের সেই প্রথম টেস্টের ২২ জন আবার একত্রে এক মাঠে হাজির হবেন ২২ নভেম্বর। এছাড়াও টস হবে সোনার কয়েনে । ট্রফি নামবে হেলিকপ্টারে করে । পিঙ্ক বল আসবে ড্রোনের মাধ্যমে ।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Related posts

Leave a Comment